এপলের ঘড়ি না নতুন টয়োটা করোলা?

সম্প্রতি উদ্বোধন করা এপলের নতুন প্রযুক্তি এপল ওয়াচ পত্রিকায় আসার সাথে সাথেই প্রচন্ড সমালোচনায় পড়েছে প্রযুক্তি বক্তা, ব্যাবসা সমালোচক এবং সাধারন ব্যবাহরকারীর কাছে। সমালোচনার মূল কারন এর দাম এবং প্রযুক্তি।

এপলের সবচেয়ে কমদামী সাধারন ঘড়ির দাম AUD 500 এবং স্বর্নের প্রলেপ দেয়া ঘড়ির দাম AUD 14,000 থেকে AUD 24,000 পর্যন্ত। ডিজিটাল প্রযুক্তি নির্ভর যন্ত্র সংগ্রহে রাখার মতো কোন কিছু না। আপনি ৫০ বছর পুরনো ঘড়ি এখনো চালাতে পারবেন; হাতে পড়তে দ্বিধা বোধ করবেন না। কিন্তু এপলের মতো ডিজিটাল ঘড়ির প্রযুক্তি প্রতি বছর পরিবর্তন হবে। প্রতি বছর প্রযুক্তিতে নিত্য নতুন সুবিধা যোগ করা হবে। তখন এপল ঘড়িটি বাংলা প্রবাদ বচনের মতো হয়ে যাবে “না পারলো গিলতে, না পারলো উগড়াতে…”।

অস্ট্রেলিয়ার সামাজিক ওয়েবসাইটগুলোতে একটি ব্যাঙ্গাত্বক ছবি প্রায়ই চোখে পড়ছে; এপলের ঘড়ি কিনতে যে টাকা লাগে, তা দিয়ে একটি নতুন গাড়ি কিনে ফেলা যায়!

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.